বন্ধ হচ্ছে ফেসবুক লাইভে পণ্য বিক্রি

ফে'সবুক লাইভে পণ্য বিক্রির সুবিধা বন্ধ করে দিতে চলেছে মেটার অধীনস্থ প্রতিষ্ঠান ফে'সবুক। এ বছরের অক্টোবর থেকে লাইভে পণ্য বিক্রি বন্ধ করছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের জনপ্রিয় এই প্রতিষ্ঠানটি। সম্প্রতি এক ব্লগ পোস্টে এ সি'দ্ধান্তের কথা জানিয়েছে মেটা। মূলত, ইনস্টাগ্রামের রিলসে মনযোগ দিতেই এ সি'দ্ধান্ত নিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। বর্তমানে ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীদের ২০ শতাংশ রিলসের ভিডিও দেখে সময় কা'টান। ফলে, মেটার এই নতুন সি'দ্ধান্ত।

ওই পোস্টে মেটা জানিয়েছে, ফে'সবুক লাইভ ও ইভেন্টগু'লোতে লাইভ ভিডিও সম্প্রচার করা যাব'ে, কিন্তু লাইভ ভিডিওর প্লে-লিস্টে কোনো পণ্যের ট্যাগ দেওয়া যাব'ে না। পণ্যের ট্যাগ, প্রদর্শনী ইনস্টাগ্রাম ‘রিল’-এর মাধ্যমে করতে অনুরোধে করেছে মেটা।

মেটা জানিয়েছে, সম্প্রতি দর্শকরা ছোট দৈর্ঘ্য, প্রস্থের লাইভ ভিডিও’র দিকে ঝুঁকছে। বড়-বড় লাইভ দেখতে মানুষ তেমন আগ্রহী না। এ জন্য মেটা ইনস্টাগ্রামের রিলসের দিকে বিশেষভাবে নজর দিতে চাচ্ছে। রিলসের মাধ্যমে পণ্য বিক্রি, প্রচার ও ট্যাগ দেওয়া যাব'ে।

ফে'সবুক লাইভ শপিং ফিচারটি চালু হয় দু’বছর আগে। এরপর এটি তুমুল জনপ্রিয়তা অর্জন করে। এতদিন এ লাইভ শপিং ইভেন্ট ফিচারটি ব্যবহার করে ফে'সবুক মা'র্কেটিং এর মাধ্যমে ব্যবসায়ীরা সম্ভাব্য ক্রেতা, দর্শনার্থীদের জন্য পণ্যের ভিডিও তৈরি করত; যা ছিল অনেকটাই নিজস্ব হোম শপিং নেটওয়ার্ক। এখানে একজন ব্যবসায়ী তার ফলোয়ারদের লাইভ শপিং সেশনের বা প্রিমিয়ারিং এর নোটিফিকেশন দিতে পারত এবং মেসেঞ্জারের মাধ্যমে বিক্রির পেমেন্ট নিতে পারত। ক্রেতারাও ঘরে বসে পণ্য পেত।

এদিকে, সম্প্রতি জনপ্রিয় চীনা অ্যাপস ‘টিকটক’ তাদের কিছু কৌশলগত অগ্রগতির কারণে তরুণ সম্প্রদায়কে বেশ আকৃষ্ট করেছে। ফলে রাজস্ব হারাচ্ছে মেটা। এ ক্ষ'তি পুষিয়ে নিতে একটি বড় হাতিয়ার হিসাবে জাকারবার্গ ফে'সবুক এবং ইনস্টাগ্রামে রিলকে অনেক গু'রুত্ব দিচ্ছেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*